বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ১২:০১ পূর্বাহ্ন

শ্রমিক ছাঁটাই নয়, পোশাকশিল্পে উৎপাদন বৃদ্ধি ও বাজার সম্প্রসারনের পরামর্শ

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম শনিবার, ৬ জুন, ২০২০
  • ৫২৪ বার পঠিত

করোনা মোকাবিলা করে চীন ও ভিয়েতনাম যেখানে পোশাকখাতে রফতানি বাড়িয়েছে, সেখানে বাংলাদেশ হারিয়েছে তার অর্ধেক বাজার। লকডাউনেও কঠোরভাবে সচেতনতা মেনে কারখানা খোলা রাখায় সাফল্য পেয়েছে ভিয়েতনাম।

বিশ্লেষকরা বলছেন, বাংলাদেশের ক্রয়াদেশ ভিয়েতনামে যাওয়া ঠেকাতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে, বৈশ্বিক চাহিদার ওপর ভিত্তি করে উৎপাদন বাড়ানো না গেলে, মুখ থুবড়ে পড়বে দেশের পোশাক শিল্প।

বিশ্বে করোনা মোকাবিলায় সবচেয়ে সফল দেশ ভিয়েতনাম। চীনের সঙ্গে দীর্ঘ সীমান্ত থাকার পরও কঠোরভাবে বিধিনিষেধ মেনে চলায়, স্বাস্থ্য ব্যবস্থার পাশাপাশি অর্থনীতিকে চাঙ্গা রাখতে পেরেছে দেশটি। ভাইরাস শনাক্ত হওয়ার পর, লকডাউন ঘোষণা হলেও, খোলা রাখা হয় তৈরি পোশাক কারখানাগুলো। ইউরোপ-আমেরিকায় মাস্ক-পিপিই উপহার পাঠিয়ে নতুন কৌশলে বাজার ধরেছে দেশটি।

ভিয়েতনামে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত সামিনা নাজ বলেন, ভিয়েতনাম বিভিন্ন দেশকে ফেস মাস্ক ডোনেশন করে গার্মেন্টস পোশাক হিসেবে।

বিজিএমইএ-র তথ্য বলছে, গেলো মে মাসেই কেবল ৬২ শতাংশ পোশাক রফতানি কমেছে। ক্রয়াদেশ চলে যাচ্ছে ভিয়েতনাম ও চীনে।

বিজিএমইএ’র সাবেক সভাপতি আনোয়ারুল আলম চৌধুরী পারভেজ বলেন, আগামী দুমাস পরে বাংলাদেশ সেই পরিমাণ উৎপাদন ক্ষমতা থাকবে না। অনেক কারখানা এমনিই বসে যাবে কাজ না থাকার কারণে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এ অবস্থায় উৎপাদন না বাড়িয়ে শ্রমিক ছাঁটাই ডেকে আনতে পারে বড় বিপর্যয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2019 Bankbimabd
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebazarbankbimabd41